logo

মঙ্গলবার ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ১ ফাল্গুন ১৪২৪, ২৭ জমাদিউল-আউয়াল ১৪৩৯

সাকিবকে ছাড়া খেলা বাংলাদেশের জন্য বড় আঘাত
১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮
স্পোর্টস ডেস্ক
খাদের কিনারা থেকে ওঠে এসে ত্রিদেশীয় ওয়ানডের সিরিজ জয়। এরপর টেস্ট সিরিজে স্বাগতিকরা যথারীতি নাস্তানাবুদ। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টাইগারদের সাফল্য বলতে গেলে শূন্যই। তাই টি-টুয়েন্টি সিরিজে ঘুরে দাঁড়াতে মরিয়া থাকবে বাংলাদেশ দল। এটাই স্বাভাবিক। লঙ্কান সেরা অলরাউন্ডার থিসারা পেরেরাও একই কথা। আগের দুই সিরিজের হারের ক্ষত ঘোচাতে টি-টুয়েন্টিতে ভিন্ন মেজাজে বাংলাদেশকে দেখা যাবে। তারপরও এ সংস্করণে নিজেদের সাফল্যের কথা মনে করিয়ে নিজেদেরই ফেবারিট বলছেন এ অলরাউন্ডার।

অথচ ঘরের মাঠে শুরু থেকেই নিজেদের এগিয়ে রেখেছিলেন টাইগাররা। কিন্তু ওয়ানডে ও টেস্ট দুই সিরিজেই শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে কুলিয়ে উঠতে পারেনি তারা। তাই টি-টুয়েন্টিতে জিততে টাইগাররা মরিয়া হয়েই খেলবে।

মঙ্গলবার মিরপুরের একাডেমি মাঠে অনুশীলন শেষে সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে শ্রীলঙ্কা দলের অলরাউন্ডার থিসারা পেরেরা বলেন, ক্রিকেট এমন একটা খেলা, যেটায় আপনি বলতে পারবেন না কারা জিতবে বা কারা হারবে। তবে যে দল কম ভুল করবে, মাঠে তারাই জিতবে। আমি জানি, বাংলাদেশ শক্তভাবে ফিরে আসার চেষ্টা করবে। কারণ এর আগে তারা ওয়ানডে ও টেস্ট দু’টি সিরিজ টানা হেরেছে। আমার মনে হয়, তারা আগের দুই সিরিজের চেয়ে ভালোভাবেই ফিরবে।

নিজেদের সম্মান রক্ষার্থে হলেও টি-টুয়েন্টি সিরিজে ঘুরে দাঁড়াতে চায় বাংলাদেশ। তবে কাজটা বেশ কঠিনই হবে টাইগারদের জন্য। কারণ ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ত এ সংস্করণে বেশ শক্তিশালী লঙ্কানরা। যদিও গত বছর কোনও সিরিজই জিততে পারেনি তারা।

গত বছর বিক্ষিপ্ত থাকা দলটি এ বছরের শুরুতেই বাংলাদেশের বিপক্ষে টানা দুই সিরিজ জিতে নিয়েছে। তাই মোমেন্টাম এবং আত্মবিশ্বাস দুই-ই সফরকারীদের পক্ষে। আর সে বিশ্বাস থেকেই বেশ জোর দিয়ে নিজেদের ফেবারিট বললেন থিসারা, ত্রিদেশীয় ওয়ানডে সিরিজ জিতে টেস্ট দলকে ভাল একটা মোমেন্টাম এনে দিয়েছে ক্রিকেটাররা। সেটিই তারা বাগিয়ে নিয়েছে। এখন টেস্ট দল যেটা করেছে তেমন কিছুই আমাদের করতে হবে। একজন শ্রীলঙ্কান হিসেবে আমি মনে করি, আমার দল টি-টুয়েন্টি সিরিজে ফেভারিট।

এদিকে টি-টুয়েন্টি সিরিজের জন্য এক ঝাঁক তরুণ ক্রিকেটারকে দলে নিয়েছে বাংলাদেশ। যাদের প্রত্যেকেই বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) ধারাবাহিক পারফরমার। দল থেকে বাদ দেয়া হয়েছে আগের সিরিজে খেলা ৭ ক্রিকেটারকে। অর্থাৎ টি-টুয়েন্টিতে সাফল্য পেতে দল পরিবর্তনের মধ্য দিয়ে ভাগ্য ঘোরাতে চায় বাংলাদেশ।

তবে দলে থাকলেও খেলতে পারছেন দলের সেরা ক্রিকেটার ও অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। এটাকে বাংলাদেশের জন্য বড় ধাক্কা বলেই মানছেন থিসারা, সবাই জানে সাকিব একজন মেধাবী খেলোয়াড়। সে একাই ম্যাচ ঘুরিয়ে দিতে পারে। তাই আমি মনে করি সাকিবকে ছাড়া খেলা বাংলাদেশের জন্য বড় আঘাত।

ত্রিদেশীয় সিরিজের চার ম্যাচে ১১ উইকেট নিয়ে আসরের সেরা খেলোয়াড় হয়েছেন পেরেরা। ব্যাট-হাতেও রেখেছেন দারুণ ভূমিকা। রঙিন পোশাকের ক্রিকেটে শ্রীলঙ্কা দলের গুরুত্বপূর্ণ সদস্য তিনি। বাংলাদেশের মাটিতে টি-টুয়েন্টি সিরিজেও রাখতে চান বড় অবদান।

বৃহস্পতিবার মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে প্রথম টি-টুয়েন্টি ম্যাচে মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কা। এরপর ১৮ ফেব্রুয়ারি দল দু’টি দ্বিতীয় টি-টুয়েন্টি ও সফরের শেষ ম্যাচটি খেলবে সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে।

সর্বশেষ খবর

খেলায় খেলায় এর আরো খবর

আজকের পত্রিকা. কমের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ নিষেধ

Developed by