logo

রবিবার ১৩ আগস্ট ২০১৭, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৪, ১৯ জিলকদ ১৪৩৮

শিরোনাম

নেতার কারণে পানিবন্দী ১৫ হাজার মানুষ
১৩ আগস্ট, ২০১৭
নিজস্ব প্রতিবেদক
সাভারের আশুলিয়ায় পাথালিয়া ইউনিয়নের খেজুরটেক গ্রামে আওয়ামী লীগের এক প্রভাবশালী নেতা পানি নিষ্কাশন ড্রেন বন্ধ করে দেয়ায় ১৫ হাজার মানুষ পানিবন্দি হয়ে পড়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

পাথালিয়া ইউনিয়নের ১ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি লকিতুল্লা জানান, ‘খেজুরটেক, হাটুভাঙ্গা, কালারটেক ও কমলারচালা এ চরটি গ্রাম নিয়ে গঠিত খেজুরটেক গ্রাম। এই গ্রামে গার্মেন্টস শ্রমিকসহ প্রায় ১৫ হাজার লোকের বাস। এই গ্রামের পানি নিষ্কাশনের ড্রেনটি হঠাৎ করে ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ফিরোজ কবির ও গ্রামীণ কল্যাণ নামের একটি প্রতিষ্ঠান বালু ভরাট করে বন্ধ করে দেয়। এরপর কয়েকদিনের বৃষ্টিতে ওই গ্রামে ব্যাপক জলাবদ্ধতা দেখা দেয়।’

‘এর ফলে অতি বৃষ্টিতে রাস্তা-ঘাট ডুবে যাওয়ায় চরম বিপাকে পড়েছে প্রায় ১৫ হাজার গ্রামবাসী। স্কুল কলেজের শিক্ষার্থী ও গার্মেন্টস শ্রমিকরা নিজ নিজ কর্মস্থলে যেতে পারছেন না। এ থেকে পরিত্রাণের আশায় রোববার সকালে এলাকাসী খেজুরটেক এলাকায় একজোট হয়ে প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে। এসময় তারা দ্রুত জলাবদ্ধতা নিরসনে সাভার উপজেলা প্রশাসনের পস্তক্ষেপ কামনা করে।’

এলাকাবাসীর অভিযোগ, এ ঘটনায় কেউ প্রতিবাদ করলে ফিরোজ কবিরের লোকজন তাদেরকে মিথ্যা মামলায় ফাঁসানোর হুমকি দিচ্ছে।

এ বিষয়ে পাথালিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পারভেজ দেওয়ান বলেন, ‘ইচ্ছাকৃতভাবে ওই এলাকার পানি নিষ্কাশনের জন্য ড্রেনটি বন্ধ করে দেয়ায় ওই এলাকার রাস্তা-ঘাট ডুবে গেছে। বিপাকে পড়েছে প্রায় ১৫ হাজার গ্রামবাসী।’

ওই এলাকার পানি নিষ্কাশনের ড্রেন বন্ধ করে দেয়ার বিষয়টি শুনেছেন বলে জানান ঢাকা ১৯ আসনের সংসদ সদস্য ডা. এনামুর রহমান। তিনি বলেন, ‘আমি স্থানীয় প্রশাসনকে বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য বলেছি।’

সাভার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শেখ রাসেল হাসান বলেন, ‘ওই এলাকায় পানি নিষ্কাষণের ড্রেন বন্ধ করে দেয়ার বিষয়টি আমি শুনেছি। সরেজমিন পরিদর্শন করে বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

এ ঘটনায় ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ফিরোজ কবির কোন প্রকার মন্তব্য করতে রাজি হননি।

সর্বশেষ খবর

শেষ পাতা এর আরো খবর

আজকের পত্রিকা. কমের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ নিষেধ

Developed by