logo

রোববার ১৬ জুলাই ২০১৭,০১ শ্রাবন ১৪২৪, ২১ শাওয়াল ১৪৩৮

শিরোনাম

স্বাস্থ্যসচিবসহ দুইজনের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল
১৬ জুলাই, ২০১৭
নিজস্ব প্রতিবেদক
অ্যান্টিবায়োটিক ওষুধ উৎপাদনের বিষয়ে যথাযথ নিয়ম মেনে কমিটি গঠন না করায় স্বাস্থ্যসচিবসহ দুইজনের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে তাদের এই রুলের জবাব দেয়ার আদেশ দেয়া হয়েছে।

রোববার হাইকোর্টের বিচারপতি সৈয়দ মোহাম্মদ দস্তগীর হোসেন ও বিচারপতি মো. আতাউর রহমান খানের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

নির্দেশনা অমান্য করে ২৮টি কোম্পানির অ্যান্টিবায়োটিক (পেনিসিলিন ও সেফালোস্পোরিন), স্ট্যারয়েড, অ্যান্টিক্যান্সার এবং হরমোনবিষয়ক ওষুধ উৎপাদন ও বিক্রির বিষয়ে সরকারের গঠিত ৫ সদস্যের বিশেষজ্ঞ কমিটিতে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রতিনিধি না রাখায় স্বাস্থ্যসচিবসহ দুইজনের বিরুদ্ধে আদালত এ অবমাননার রুল জারি করেন।

আদালতে আবেদনকারীর পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট মনজিল মোরসেদ।

এরআগে গত বৃহস্পতিবার আদালত অবমাননার অভিযোগে আবেদন করেন মানবাধিকার ও পরিবেশবাদী সংগঠন হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড পিস ফর বাংলাদেশের (এইচআরপিবি) পক্ষে সংগঠনটির সেক্রেটারি অ্যাডভোকেট আসাদুজ্জামান সিদ্দিকী।

তিনি স্বাস্থ্যসচিব সিরাজুল হক ও সিনিয়র সহকারী সচিব মাকসুদা ইয়াসমিনের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগ আনেন।

এর আগে গত ১৩ ফেব্রুয়ারি দেশের ২০টি কোম্পানির লাইসেন্স বাতিল করে সকল ধরনের ওষুধ উৎপাদন বন্ধের আদেশ দেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে ১৪টি কোম্পানির সকল ধরনের অ্যান্টিবায়োটিক উৎপাদনের আদেশও দেন আদালত।

রায়ে আদালত ৫ সদস্যের একটি কমিটি গঠন করে দেন। ওষুধ কোম্পানিগুলো জিএমপি (গুড ম্যানুফ্যাকচার প্রাক্টিসেস) নীতিমালা অনুসরণ করে ওষুধ উৎপাদন করছে কিনা, সে বিষয়টি এ কমিটিকে দেখভাল করার কথা বলা হয়। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার একজন প্রতিনিধিকে কমিটির প্রধান করার নির্দেশ দিয়েছিলেন আদালত।

সর্বশেষ খবর

আজকের পত্রিকা. কমের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ নিষেধ

Developed by