logo

সোমবার ১৮ ডিসেম্বর ২০১৭, ৪ পৌষ ১৪২৪, ২৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

ফিলিপিন্সে ভূমিধসে নিহত ২৬
১৮ ডিসেম্বর, ২০১৭
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
ফিলিপিন্সে ঘূর্ণিঝড় কাই তাকের আঘাতে সৃষ্ট ভূমিধসের ঘটনায় ২৬ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আরো ২৩ জন নিখোঁজ রয়েছেন। পূর্বাঞ্চলীয় ফিলিপিন্সের বিলিরান দ্বীপে এই হতাহতের ঘটনা ঘটেছে বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ। খবর বিবিসির।

ক্রান্তীয় ঘূর্ণিঝড় কাই তাক যা স্থানীয়ভাবে উরদুজা নামে পরিচিত, শনিবার আঘাত হানার একদিন পর এই ভূমিধসের ঘটনা ঘটলো।

একজন পুলিশ কর্মকর্তা বলেছেন, বৃষ্টিপাতের কারণে ‘গাড়ির সমান পাথর’নড়ে গেছে।

দেশটির দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ঘূর্ণিঝড়ের কারণে সেখানে ফেরি চলাচলে ব্যাঘাত ঘটেছে। ফলে কমপক্ষে ১৫ হাজার যাত্রী আটকা পড়েছে।

বিলিরানের প্রাদেশিক দুর্যোগ ঝুঁকি হ্রাস ও ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা সোফরোনিও ডাসিলো বলেছেন, সেখানকার চারটি শহরে ভূমিধসের ঘটনায় ২৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। আমরা মৃতদেহগুলো উদ্ধার করেছি।

পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশের গভর্নর গেরারদো এসপিনা নিহতের এই সংখ্যা নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে ঘূর্ণিঝড়কে সামনে রেখে ৮৮ হাজার লোককে সরিয়ে নিয়েছিল কর্তৃপক্ষ। তবে রোববার ঘূর্ণিঝড়টি দুর্বল হয়ে গেলে সেটি নিম্নচাপে পরিণত হয়।

এদিকে আটকে পড়াদের খুঁজে বের করতে উদ্ধার অভিযান চলছে।

ঘূর্ণিঝড়ে পার্শ্ববর্তী সামার ও লেয়টে দ্বীপেও ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। সেখানে বিদ্যুত সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যাওয়ার পাশাপাশি ভবনও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

ওই এলাকাটি এখনো টাইফুন হাইয়ানে ক্ষত সারিয়ে উঠতে পারেনি। ২০১৩ সালের ওই ঘূর্ণিঝড়ে পাঁচ হাজারের বেশি মানুষ মারা যায় আর ক্ষতি কয়েক লাখ মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

সর্বশেষ খবর

আজকের পত্রিকা. কমের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ নিষেধ

Developed by