logo

মঙ্গলবার, ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২৭ ভাদ্র ১৪২৫, ৩০ জিলহজ ১৪৩৯

খালেদা জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে ছলচাতুরি চলছে: রিজভী
১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮
নিউজ ডেস্ক
বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, দলের চেয়ারপারসন কারাবন্দি খালেদা জিয়া গুরুতর অসুস্থ হলেও এখনও পর্যন্ত তার সুচিকিৎসার কোনো ব্যবস্থা নেয়নি সরকার। তার ব্যক্তিগত চিকিৎসকরা আশঙ্কা প্রকাশ করছেন- দ্রুত চিকিৎসা না দেয়া হলে তার বাম পা ও হাত অবশ হয়ে যেতে পারে।

তিনি বলেন, তার (খালেদা জিয়া) শারীরিক অবস্থা দিন দিন অবনতির দিকে যাচ্ছে। তার চিকিৎসা নিয়ে ছলচাতুরি চলছে এবং কালক্ষেপণ করা হচ্ছে।

কালবিলম্ব না করে খালেদা জিয়াকে বেসরকারি বিশেষায়িত হাসপাতালে সুচিকিৎসার দাবি জানান তিনি।

একই সঙ্গে দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও দলের স্থায়ী কমিটির সদস্যদের একটি উচ্চপর্যায়ের প্রতিনিধিদল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করার পর দুদিন পার হয়ে গেলেও খালেদা জিয়ার চিকিৎসা বিষয়ে কোনো কার্যকর উদ্যোগ না নেয়ায় সরকারের সমালোচনা করেন রিজভী।

মঙ্গলবার সকালে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব বলেন।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন দলের চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কবীর মুরাদ, যুগ্ম মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন, সহদফতর সম্পাদক মুনির হোসেন, সহসাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল আউয়াল খান প্রমুখ।

রিজভী বলেন, গতকাল থেকে এ পর্যন্ত প্রাপ্ত তথ্যমতে ঢাকাসহ দেশব্যাপী ৩০০ জনের অধিক বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। কেবল ঢাকাতেই প্রায় ২৭৫ নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

অবিলম্বে নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার ও তাদের নিঃশর্ত মুক্তির জোর দাবি জানান তিনি।

রিজভী বলেন, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি ও সুচিকিৎসার দাবিতে গতকাল দেশব্যাপী মানববন্ধন পালনকালে পুলিশ ব্যাপক ধরপাকড়, নির্বিচারে গ্রেফতার ও হামলা করার পরও সব বাধা উপেক্ষা করে মানববন্ধন কর্মসূচি সফল করেছে বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

তিনি বলেন, সভাসমাবেশসহ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করা রাজনৈতিক দলগুলোর সাংবিধানিক অধিকার। তার পরও যথাযথ কর্তৃপক্ষের অর্থাৎ পুলিশের অনুমোদন নিয়ে শান্তিপূর্ণ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করলেও নির্বিচারে গ্রেফতারের ঘটনা ন্যক্কারজনক। মানববন্ধনের মতো শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে হামলা, গুলি ও নির্বিচারে গ্রেফতারের ঘটনায় দেশজুড়ে সমালোচনার ঝড় বইছে।

মামলা ও গ্রেফতারের অভিযোগ তুলে রিজভী বলেন, গতকাল বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সহধর্মবিষয়ক সম্পাদক জন গমেজকেও পুলিশ গ্রেফতার করেছে। এ ছাড়া বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য আবুবকর সিদ্দিককে গতকাল থেকে কোথাও পাওয়া যাচ্ছে না। খোঁজ না পাওয়ায় তার পরিবার ও বিএনপির সব নেতাকর্মী গভীরভাবে উদ্বেগ ও উৎকণ্ঠিত। নিশ্চয়ই তিনি সরকারি কোনো বাহিনীর কাছে আছে। আমি অবিলম্বে তাকে জনসমক্ষে হাজির করার জন্য জোর দাবি জানাচ্ছি।

সর্বশেষ খবর

আজকের পত্রিকা. কমের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ নিষেধ

Developed by