logo

শুক্রবার ১১ আগস্ট ২০১৭, ২৭ শ্রাবণ ১৪২৪, ১৭ জিলকদ ১৪৩৮

শিরোনাম

আবাসিক হোটেল ঘেরাও করে ৮ জনকে পুলিশে দিল মুসুল্লিরা
১১ আগস্ট, ২০১৭
নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি
জুম্মার নামায শেষে মুসুল্লিরা আবাসিক হোটেলে ঘেরাও দিয়ে অসামাজিক কার্যকলাপের অভিযোগে ৩ জন পুরুষ, ৪ জন মহিলা ও হোটেল ম্যানেজারকে আটকের পর গণধোলাই দিয়ে পুলিশের কাছে সোপর্দ করেছে।

শুক্রবার নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলার ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের পাশে মোগরাপাড়া চৌরাস্তার নোয়াব প্লাজায় অবস্থিত কুইন গার্ডেন গেস্ট হাউজে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানান, ওই আবাসিক হোটেলে দীর্ঘদিন যাবত অসামাজিক কার্যকলাপের অভিযোগ থাকলেও স্থানীয় প্রশাসন কোনো ব্যবস্থা নেয়নি।

ফলে শুক্রবার দুপুরে জুম্মার নামাজ শেষে স্থানীয় মোগরাপাড়া চৌরাস্তার কয়েকটি মসজিদের মুসল্লিরা একত্রিত হয়ে ওই গেস্ট হাউজটি বন্ধে ঘেরাও দেয়। এসময় মুসল্লিরা হোটেল থেকে অসামাজিক কার্যকলাপের অভিযোগে ৩ জন পুরুষ, ৪ জন মহিলা ও হোটেল ম্যানেজারকে আটক করে। এরপর তাদের গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে।

বিক্ষোভকারীদের উপস্থিতি টের পেয়ে হোটেলে পেছন দিয়ে আরও অনেক পুরুষ ও মহিলা দৌড়ে পালিয়ে যায়। এসময় বিক্ষোভকারীরা ওই হোটেলটির দরজা, জানালা, চেয়ার-টেবিলসহ বিভিন্ন আসবাবপত্র ভাঙচুর করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

সোনারগাঁ থানার ওসি মো. মোরশেদ আলম পিপিএম জানান, কুইন গার্ডেন গেস্ট হাউজে অসামাজিক কার্যকলাপ পরিচালনা করার অভিযোগে এর মালিক পক্ষ ও আটককৃতদের বিরুদ্ধে থানায় একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

এছাড়াও পিরোজপুর এলাকার ২টি আবাসিক হোটেলসহ উপজেলার কয়েকটি আবাসিক হোটেলে অসামাজিক কার্যকলাপ বন্ধ করতে পুলিশ অভিযান শুরু করবে।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, ওই আবাসিক হোটেলে দীর্ঘদিন যাবৎ দেহ ব্যবসা, মাদক ব্যবসা ও বিভিন্ন অসামাজিক কার্যকলাপ পরিচালিত হয়ে আসছিল।

সর্বশেষ খবর

খবর এর আরো খবর

আজকের পত্রিকা. কমের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ নিষেধ

Developed by